আজ ২০শে অক্টোবর, ২০১৮ ইং; ৫ই কার্তিক, ১৪২৫ বঙ্গাব্দ; হেমন্তকাল

তিন মেধাবী সন্তান নিয়ে বিপাকে দিনমজুর রমজান আলী

  •  
  •  
  •  
  •  
  •  
  •  
  •  
  •  
1495479463তিন মেধাবী সন্তান নিয়ে চরম বিপাকে পড়েছেন জেলায় নালিতাবাড়ি উপজেলার আমতলা গ্রামের দিনমজুর রমজান আলী। ‘দিন ভিক্ষা তণু রক্ষা’— যার অবস্থা তার আছে দুই মেধাবী মেয়ে আর এক মেধাবী ছেলে। না পারছেন তাদের পড়াশোনার খরচ বহন করতে না পারছেন তিন বেলা প্রয়োজনীয় খাবারের যোগান দিতে।

রমজান আলী বলেন, দিনমজুরি করে যে অর্থ পাওয়া যায় তাই দিয়ে আমাকে পাঁচ জনের সংসার চালাতে হয়। সবসময়ই দিনমজুরের কাজ মেলে না। মাঝে মধ্যে বেকার বসে থাকতে হয়। আমার বাড়িভিটা ছাড়া আর কোনো জমি নেই। তিনি জানান, বড় মেয়ে সুলতানা রাজিয়া রূপা গত বছর (২০১৬ সালে) নন্নী উচ্চ বিদ্যালয় থেকে এসএসসিতে জিপিএ-৫ পেয়ে পাস করে বর্তমানে শেরপুর সরকারি কলেজে প্রথমবর্ষে পড়ছে। দ্বিতীয় মেয়ে রুমানা জান্নাত এবার একই স্কুল থেকে গোল্ডেন জিপিএ-৫ পেয়ে এসএসসি পাস করেছে। একমাত্র ছেলে রিয়াজ চলতি বছরে জেএসসিতে (অষ্টম শ্রেণির সমাপনী পরীক্ষা) গোল্ডেন জিপিএ-৫ পেয়ে মেধাবৃত্তি লাভ করেছে।

তিনি বলেন, ছেলে-মেয়েরা লেখাপড়ায় খুবই আগ্রহী। আমারও ইচ্ছা ছেলে-মেয়েরা উচ্চ শিক্ষিত হোক; কিন্তু আমার সাধ ও সাধ্যের মধ্যে বিস্তর ফারাক রয়েছে। অসহায় ও দরিদ্র শিক্ষার্থী উন্নয়ন সংস্থা ‘ডপস’ এবং সমাজের কয়েকজন সহূদয়বান ব্যক্তির সহায়তায় আমি ছেলে-মেয়েদের এ পর্যন্ত এনেছি; কিন্তু পরবর্তীতে তাদের উচ্চ শিক্ষার খরচ কীভাবে বহন করবো সেটি এখন আমার ভাবনার বিষয়।

তিনি জানান, তার যদি একটা স্থায়ী আয়ের ব্যবস্থা হতো তাহলে তার ছেলে-মেয়ের উচ্চ শিক্ষা দেওয়ার বিষয়টি অনেকটাই সমাধান হতো। তার স্বপ্ন তিনি যদি একটি ব্যাটারি চালিত আটো রিকশার মালিক হতে পারতেন তাহলে তার সন্তানদের ইচ্ছে পূরণ করতে পারতেন। কোনো সহূদয় ব্যক্তি বা প্রতিষ্ঠান কেউ কি এ ব্যাপারে এগিয়ে আসবেন?
প্রিন্ট করুন
মন্তব্য করুন